সাগর রুনি হত্যার সকল তথ্য ফাঁস করলেন এসকে সিনহা! মহাবিপদে প্রধানমন্ত্রী! বিস্তারিত ভিডিওতে!!

দিনে দপুরে গোসলখানায়,”মামীর” সাথে আপত্তিকর অবস্থায় ধরা পড়লো ‘ভাগীনা’ !! তারপর মামার যা করলো…

বি: দ্র : ই্উটিউব থেকে প্রকাশিত সকল ভিডিওর দায় সম্পুর্ন ই্উটিউব চ্যানেল এর ।

এর সাথে আমরা কোন ভাবে সংশ্লিষ্ট নয় এবং আমাদের পেইজ কোন প্রকার দায় নিবেনা।
ভিডিওটির উপর কারও আপত্তি থাকলে তা অপসারন করা হবে। প্রতিদিন ঘটে যাওয়া নানা রকম ঘটনা আপনাদের মাঝে তুলে ধরা এবং সামাজিক সচেতনতা আমাদের লক্ষ্য এবং উদ্দেশ্য ।

বাংলাদেশে সংখ্যালঘু হিন্দুদের ওপর বিভিন্ন আক্রমণের ঘটনা বাংলাদেশের সরকার যেভাবে মোকাবিলা করতে চাইছে তাতে পূর্ণ সমর্থন জানিয়েছে প্রতিবেশী ভারত।

দিল্লিতে আজ ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বলেছেন, এটা স্বীকার করতেই হবে যে শেখ হাসিনা সরকার এই হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোরতম পদক্ষেপ নিচ্ছে এবং ইতিমধ্যেই বাংলাদেশ জুড়ে তিন হাজারেরও বেশি সন্দেহভাজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তবে পাশাপাশি তিনি এটাও উল্লেখ করেছেন প্রতিবেশী দেশে নির্যাতিত সংখ্যালঘুদের জন্য ভারতের দরজা সব সময়ই খোলা থাকবে।

দিল্লিতে ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী তার বাৎসরিক সংবাদ সম্মেলনে আজ এসব কথা বলেছেন।

সাংবাদিক বৈঠকে অনেকটা প্রসঙ্গ জুড়েই ছিল বাংলাদেশ – এবং সেখানে তিনি স্পষ্ট করে দিয়েছেন সেদেশে হিন্দুদের ওপর সাম্প্রতিক নানা হামলার ঘটনায় ভারত সরকার বিচলিত।

কিন্তু বিবিসি বাংলার এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এটাও বলেছেন যে এই হামলাগুলোকে তিনি ঠিক বাংলাদেশে ক্ষমতাসীন সরকারের ব্যর্থতা হিসেবে দেখতে রাজি নন।

মিস স্বরাজ বলেন, এই হামলাগুলো যেমন দুর্ভাগ্যজনক, তেমনি ভারতের জন্য পীড়াদায়কও বটে।

“দুই দেশের সর্বোচ্চ স্তরে এ বিষয়ে নিয়মিত আমাদের কথাবার্তা হচ্ছে। তবে একটা কথা আমাকে অবশ্যই বলতে হবে, বাংলাদেশ সরকার এই হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিতে কোনও চেষ্টার ত্রুটি রাখছে না। তিন হাজারেরও বেশি লোককে এর মধ্যেই গ্রেফতার করা হয়েছে। শেখ হাসিনা সত্যিই খুব কঠোর পদক্ষেপ নিচ্ছেন।”

সুষমা স্বরাজ এটাও বলেছেন, তার জন্য এটা অত্যন্ত খুশির খবর যে বাংলাদেশের ইসলাম ধর্মীয় নেতারা রীতিমতো ফতোয়া দিয়ে এই ধরনের হামলাকে ইসলামবিরোধী বলে বর্ণনা করেছেন – এবং লক্ষাধিক ধর্মীয় নেতা তাতে সইও করেছেন।